Home / অন্যান্য / কম খরচে যেকেউ রিসোর্টে রাত কাটাতে পারবেন আমার সঙ্গে: কণ্ঠশিল্পী সালমা

কম খরচে যেকেউ রিসোর্টে রাত কাটাতে পারবেন আমার সঙ্গে: কণ্ঠশিল্পী সালমা

নিজস্ব অর্থায়নে একটি রিসোর্ট তৈরি করেছেন কণ্ঠশিল্পী সালমা। বর্তমানে এই রিসোর্টের সার্বিক তত্ত্বাবধানে ময়মনসিংহে অবস্থান করছেন তিনি। সালমা গণমাধ্যমকে বলেন, অনেকদিন ধরেই এমন একটি পরিকল্পনা নিয়ে চিন্তা করেছি। অবশেষে সেটি বাস্তবায়নের কাজও শুরু করেছি। রিসোর্টটির নির্মাণ কাজ শেষ পর্যায়ে আছে। তিনি বলেন, কম খরচে যেকেউ রাত কা’টাতে পারবেন।

আশা করছি দ্রুতই বিনোদন পিয়াসীদের জন্য উ’ন্মুক্ত করা যাবে রিসোর্টটি। এই কাজটির জন্য মাঝে মাঝেই এখানে আসতে হয় আমার। এদিকে মৌলিক গানে কণ্ঠ দিয়ে যাচ্ছেন সালমা। অল্প করে হলেও স্টেজের গানেও দর্শকদের মাতাচ্ছেন তিনি।

টিভির গানের অনুষ্ঠানগুলোতেও রয়েছে তার সরব উপস্থিতি। করোনাকা’লেও নানাবিধ সামাজিক কর্মকা’ণ্ডে ব্যাপক উপস্থিতি দেখা গেছে কণ্ঠশিল্পী সালমার। তার প্রতিষ্ঠিত সাফিয়া ফাউন্ডেশনের হয়ে তিনি সাহায্য করেছেন দরিদ্র মানুষদের।

ছুটি রিসোর্ট
ছুটি রিসোর্ট এর অবস্থান ভাওয়াল জাতীয় উদ্যান ঘেঁষে গাজীপুরের সুকুন্দি গ্রামে। প্রায় ৫০ বিঘা জায়গা নিয়ে এই রিসোর্টটি গড়ে উঠেছে। এখানে রয়েছে নৌ ভ্রমণ এর ব্যবস্থা। বিরল প্রজাতির বৃক্ষরাজির সমন্বয়ে গড়ে উঠা এখানকার সংরক্ষিত বনে তাঁবু টানানো আছে। এখানকার দর্শনার্থীদের জন্য রয়েছে নানান মৌসুমি ফল। যেগুলো বিনামূল্যে সরবরাহ করে কতৃপক্ষ। অতিথিদেরকে সকালে পরিবেশন করা চালের রুটি অথবা চিতই পিঠা। সাথে সবজি ডাল ভুনা আর মুরগির মাংস। খুব কাছ থেকে বিল ঝিলের আনন্দ উপভোগ করতে পারবেন এখানে। ছুটি রিসোর্ট এর বড় আকর্ষণ এখানকার মাছ ধরার ব্যবস্থা। নির্দিষ্ট ফি এর বিনিময়ে রিসোর্টের লেকে মাছ ধরতে পারবেন। এইসব আয়োজন আপনাকে ফিরিয়ে নিয়ে যাবে নিজের শৈশবে!

কিভাবে যাবেন ছুটি রিসোর্ট
ছুটি রিসোর্ট যাওয়ার জন্য প্রথমে গাজীপুর চৌরাস্তা আসতে হবে। সেখান থেকে নিজস্ব পরিবহন বা যাত্রীবাহী বাসে করে গাজীপুর ডিসি অফিস (রাজবাড়ী) এর সামনে আসতে হবে। সেখান থেকে তিন কিলোমিটার পূর্বে আমতলী বাজারের কাছে সুকুন্দি গ্রামে সুকুন্দি গ্রামে ছুটি রিসোর্ট এর অবস্থান।