[X]
Home / ফিটনেস / কোমরের ও পেটের চর্বি কমাতে কার্যকর সহজ পাঁচ পদ্ধতি জেনে নিন!

কোমরের ও পেটের চর্বি কমাতে কার্যকর সহজ পাঁচ পদ্ধতি জেনে নিন!

পেটের চর্বি আসলে ভিসেরাল ফ্যাট জমে জমেই তৈরি হয়। অস্বাস্থ্যকর ডায়েট এবং অনিয়মিত ব্যায়াম আপনার ওজন বাড়াতে এবং পেটে চর্বি জমাতে কাজ করে। তাই এ পেটের চর্বি ও অতিরিক্ত ওজন কমাতে আজই তৈরি হতে হবে আপনাকে। আসুন এবার জেনে নেওয়া যাক পেটের চর্বি দূর করার কার্যকর ৫টি পদ্ধতি-



১) পর্যাপ্ত পানি পানঃ নিয়মিত পর্যাপ্ত পানি পান করলে শরীরের অনেক সমস্যা দূর করা সম্ভব। পানি শরীর থেকে বিষাক্ত জীবাণু দূর করতে সাহা্য্য করে। ২) স্ট্রেস কমায় এমন খাবার খানঃ স্ট্রেস কমায় এরকম খাবার বলতেই চীজ বা চকোলেটের কথা ভুলেও ভাববেন না। ওটস, কলা এবং তাজা ফল খান। এতে থাকা ভিটামিন সি মানসিক চাপ কমাতেও সাহায্য করে। ওটসে আছে সেরোটোনিন যা পজিটিভ শক্তি বাড়ায়।



৩) স্বাস্থ্যকর খাবারঃ কার্বোহাইড্রেট খাওয়া এখনই কমিয়ে দিতে হবে। গ্লাইসেমিক সূচক কম এমন খাবারে জোর দিন বেশি। তৈলাক্ত এবং জাঙ্ক ফুড, চিপস, বেকড ফুড, কুকি এবং মিষ্টি এড়িয়ে চলুন। তাজা ফল ও সবজি স্যালাড খান বেশি।



৪) আট ঘণ্টার ঘুমঃ ঘুমের অভাবে বিপাক ক্ষমতা নষ্ট হয়। গেরিলিন এবং লেপটিন নামক দুই হরমোনের মধ্যে প্রথমটি জানান দেয় কখন খেতে হবে, তাই কম ঘুম হলে এই হরমোন বেশি ক্ষতিগ্রস্ত হয়। লেপটিন হরমোন আমাদেরকে খাওয়া বন্ধ করতে বলে, ঘুম কম হলে এই হরমোনের ক্ষমতা কমে যায়।



৫) সপ্তাহে অন্তত চার দিন ব্যায়াম করুনঃ ব্যায়াম ক্যালোরি বার্ন, পেশী নির্মাণ এবং পেটের চর্বি থেকে পরিত্রাণ পাওয়ার সেরা উপায়। সপ্তাহের চার দিন, সর্বনিম্ন ৪৫ মিনিটের জন্য ব্যায়াম করুন। এর জন্য জিমে যেতে পারেন, সাঁতার, যোগ করতে পারেন। বা স্রেফ হাঁটতেও পারেন।



ঝাল খাবার খান। অবাক হচ্ছেন? অবাক হবেন না। ঝাল খাবেন কিন্তু ঝালগুলো আসবে দারচিনি, আদা, গোলমরিচ এবং কাঁচামরিচ থেকে। এগুলো রান্নায় ব্যবহার করুন। এই মশলা স্বাস্থ্যকর। এগুলো শরীরের ইনসুলিন সরবরাহ বাড়ায় এবং রক্তের সুগার লেভেল কমাতে সাহায্য করে। তাই এগুলো ডায়াবেটিস রোগীর জন্যও বেশ উপকারী। পেটের মেদ কাটিয়ে উঠতে চাইলে প্রতিদিন প্রচুর পরিমাণে পানি পান করতে হবে। তাহলে শরীরের বিপাকের হার বাড়ানোর পাশাপাশি শরীরের বিষাক্ত উপাদানগুলোকে দূর করে দিবে। তাই পানিকে প্রাকৃতিক ক্লিঞ্জার বলা হয়।



সর্বপরি একজন বিশেষজ্ঞ ডাক্তারের পরামর্শ নিয়ে একটি স্বাস্থ্যকর খাদ্য তালিকা তৈরি করতে পারেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *