Home / ত্বকের যত্ন / উজ্জ্বল, ফর্সা ত্বক চাই রইল কার্যকরী কয়েকটি ঘরোয়া পদ্ধতি

উজ্জ্বল, ফর্সা ত্বক চাই রইল কার্যকরী কয়েকটি ঘরোয়া পদ্ধতি

আমরা সকলেই জানি, গায়ের রং কি হবে তা নির্ধারণ করার ক্ষমতা আমাদের নেই। সেটা জন্মের সময়ই ঠিক হয়ে যায় এবং তা জিনগত ব্যাপার। যদিও তা নিয়ে আমাদের সমাজে নানা ভেদাভেদ রয়েছে। এখনকার দিনে সুন্দর দেখতে লাগা যেহেতু খুব গুরুত্বপূর্ণ হয়ে দাঁড়িয়েছে, তাই সকলেই চায় নিজেকে সুন্দর করে তুলতে। তাতে আত্মবিশ্বাসও অনেকটাই বেড়ে যায় বলে জানিয়েছেন মানসিক বিশেষজ্ঞরা।

নিজেকে সুন্দর করে তুলতে ভিতরের সৌন্দর্যের পাশাপাশি বাইরের সুন্দরতাও প্রয়োজন। উজ্জ্বল, ফর্সা ত্বক চাই চাই। আর বাজার চলতি যে সকল বিউটি প্রোডাক্ট রয়েছে, সেগুলি কতটা এক্ষেত্রে ভরসাযোগ্য তা নিয়ে নানা প্রশ্ন রয়েছে। ফলে বাজারের ফেয়ারনেস ক্রিম নয়, ঘরোয়া পদ্ধতিতেই উজ্জ্বল ত্বক পাওয়া সম্ভব। তবে তার জন্য কিছু পদ্ধতি অবলম্বন করতে হবে।

দইঃ ত্বককে সুন্দর করে তুলতে গেলে দইয়ের ব্যবহার করুন। এমনি দই ফেটিয়ে নিয়ে সেই পেস্ট মুখে মাখুন। দশ মিনিট রেখে ধুয়ে ফেলুন। এতে থাকা প্রোটিন, ক্যালশিয়াম, ভিটামিন ডি, ত্বককে ময়শ্চারাইজ করবে ও তাড়াতাড়ি বুড়িয়ে যাওয়া আটকাবে।

অ্যাপেল সিডার ভিনেগারঃ এতে থাকা উপাদান গ্লাইকোল ত্বকের উজ্জ্বলতা বাড়ায়। এতে জল মিশিয়ে মুখে মাখুন। ভিনেগারে থাকা অ্যাসিড ত্বককে পরিষ্কার করে জেল্লা ফেরাতে সাহায্য করে।

কমলালেবু ও পেপেঃ কমলালেবুতে থাকা ব্লিচিং উপাদান ত্বককে উজ্জ্বল করে। কমলার খোসা গুড়ো করে দইয়ের সঙ্গে মিশিয়ে মুখে লাগান। ১৫ মিনিট রেখে ধুয়ে ফেলুন। পেপে পাকা পেপের মিশ্রণ ত্বকে লাগালে তা উজ্জ্বলতা পায়। পাকা পেপে ও মধু একসঙ্গে মিশিয়ে মাখলে তা প্রাকৃতিক ভাবে ত্বককে ব্লিচ করে মুখের দাগছোপ তাড়িয়ে রং হাল্কা করে দেয়।

দুধ ও মধুঃ দুধে থাকা ল্যাকটিক অ্যাসিড ত্বকের জন্য ভীষণ উপকারী। ফরসা ত্বক পেতে এটি দারুণ কাজ দেয়। পাতলা কাপড়ে ঠান্ডা দুধ ঢেলে তা ত্বকে ধীরে ধীরে ঘষুন। ১৫ মিনিট পরে ধুয়ে ফেলুন। মধু ত্বককে ময়শ্চারাইজ করতে মধুর জুড়ি নেই। এছাড়া এটি ত্বককে ব্লিচও করতে পারে। ত্বক যত আর্দ্র থাকবে ততই ত্বকের জেল্লা বজায় থাকবে।

লেবু ও হলুদঃ লেবুতে যে অ্যাসিড উপাদান রয়েছে তা ত্বককে ব্লিচ করতে সাহায্য করে। পাতলা রুমাল বা তোয়ালের মধ্যে লেবুর রস ঢেলে তা মুখের উপরে রেখে দিন। ঘণ্টাখানেক পরে মুখ ধুয়ে নিন। হলুদ ত্বকের জন্য হলুদের উপকারিতার কথা আমাদের পুরনো আয়ুর্বেদ শাস্ত্রেই রয়েছে। হলুদের মধ্যে দুধ, মধু মিশিয়ে পেস্ট তৈরি করে তা মুখে মাখুন। ১০ মিনিট বাদে ঠান্ডা জলে মুখ ধুয়ে নিন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *