Home / ফিটনেস / স্তনের আকৃতি স্বাভাবিকের চেয়ে বড় হলে যে সমস্যায় ভুগেন মেয়েরা!

স্তনের আকৃতি স্বাভাবিকের চেয়ে বড় হলে যে সমস্যায় ভুগেন মেয়েরা!

স্তন মহিলাদের কাছে রীতিমতো গর্বের বিষয়। আজ নয়, আদিকাল থেকেই আমাদের দেশে ভরাট স্তনের অধিকারিণীরা সমাদৃত হয়েছেন। কিন্তু মহিলাদের একাংশই জানাচ্ছেন, স্তনের আকৃতি স্বাভাবিকের চেয়ে বেশ খানিকটা বড় হলে তাঁদের বেশ কিছু সমস্যায় পড়তে হয়। একটি সর্বভারতীয় সংবাদমাধ্যমের সমীক্ষায় তাঁরা এই সব সমস্যার কথা ফাঁস করেছেন।

১. পোশাক: অসাধ্য সাধন হতে পারে, কিন্তু এমন কোনও শার্ট খুঁজে পাওয়া যায় না, যা পরলে স্তনযুগল উঁকি মারবে না। অফিসে ফরমাল শার্ট পরে গেলেও রক্ষা নেই। কলিগ থেকে বস- সকলের চোখ আটকে যায় ওই বিভাজিকাতেই।

২. অন্তর্বাস: স্তন বড় হলে সঠিক আকৃতির অন্তর্বাস খুঁজে পাওয়া লটারি জেতার মতো। কোনও রঙ আগেভাগে পছন্দ করে রেখেও লাভ হয় না। কারণ, দোকানে গিয়ে দেখা যায়, ওই রঙের সঠিক আকৃতির অন্তর্বাস নেই।

৩. ঘাম: স্তনযুগল আকৃতিতে যত বড় হয়, ততই তাদের নিচে ঘাম জমে। নিয়মিত সেই ঘাম পরিষ্কার না করলে শরীরে ব্যাকটেরিয়া বাসা বাঁধতে পারে। বারবার সেই ঘাম মুছতেও অস্বস্তি হয়।

৪. অস্বস্তি: যাঁদের স্তনের মাপ ছোট, তাঁরা কিছুতেই বিশ্বাস করতে চান না যে বড় স্তনের জন্য মহিলাদের অস্বস্তিতেও পড়তে হয়। তাঁরা ভাবেন, স্তন বড় হলেই বুঝি মহিলাদের সৌন্দর্য অন্য মাত্রা পায়। কিন্তু বড় স্তন রয়েছে যাঁদের, সেই মহিলারাই স্বীকার করে নিচ্ছেন, স্তনের মাপ খুব বড় হওয়ার চেয়ে স্বাভাবিক বা ছোট থাকলে নিত্যদিন এত অস্বস্তিতে পড়তে হত না।

৫. ভারসাম্যের অভাব: স্তনের মাপ খুব বড় হলে কোমরের মাপের সঙ্গে কোনও পোশাকই ঠিক যেন খাপ খায় না। কোমরের মাপের সঙ্গে স্তনের মাপে ভারসাম্যের অভাব দেখা দেয়। ৬. মোটা: আর কোমরের মাপের কথা চিন্তা না করলে ডবল এক্সেল সাইজের টিশার্ট পরলে দেখতে বড্ড মোটা লাগে, আক্ষেপ মহিলাদের।

৭. ব্যায়াম: কারও সামনে জিমে এক্সারসাইজ করা যায় না স্তনের আকৃতি খুব বড় হলে। এতে উলটোদিকের ব্যক্তিরা ব্যায়াম থামিয়ে তাঁদের দিকে তাকিয়ে থাকেন, অভিযোগ মহিলাদের একাংশের। ৮. অন্তর্বাস ছাড়া নৈব নৈব চ: ইচ্ছা থাকলেও অন্তর্বাস ছাড়া এক পাও বাইরে বেরনো যায় না।

৯. ঘুমানো: যাঁদের স্তনের আকৃতি বেশ বড়, তাঁরা বুকে ভর দিয়ে ঘুমোতে পারেন না। কারণ, এতে স্তনের অতিরিক্ত মেদ দু’হাতের ফাঁককে ভরাট করে দেয়, এতে খানিকক্ষণ পরই মাসল ক্র্যাম্প হতে হয়।

১০. ওয়াক্সিং: স্তনের আকৃতি খুব বড় হলে গোপনাঙ্গে ওয়াক্সিং করতে সমস্যা হয় বলে দাবি করছেন মহিলাদের একাংশ। কারণ, স্তনযুগলের আকৃতির জন্য কোমরের নিচে প্রায় কিছুই দেখতে পান না তাঁরা। ১১. ঝুঁকতে মানা: প্রয়োজনেও প্রকাশ্যে কোনও কারণেই ঝুঁকতে পারেন না সেই সব মহিলারা, যাঁদের স্তনের আকার বেশ বড়।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *